নিজেকে কানাডা আ্ওয়ামী লীগের প্রেসিডেন্ট ঘোষনা করলেন প্রিন্স

Tue, Mar 3, 2020 5:53 PM

নিজেকে কানাডা আ্ওয়ামী লীগের প্রেসিডেন্ট ঘোষনা করলেন প্রিন্স

নতুনদেশ ডটকম: গত সেপ্টেম্বর থেকে স্থগিত থাকা কানাডা আ্ওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক আজিজুর রহমান প্রিন্স নিজেকে দলের প্রেসিডেন্ট হিসেবে ঘোষনা দিয়েছেন। মন্ট্রিয়লের ইতরাদ জুবেরী সেলিমকে সাধারন সম্পাদক করে দলের  দায়িত্ব গ্রহনের  ঘোষনা দেন তিনি। তিনি বলেন,’আমি দলের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহন করছি।

গত ১ মার্চ শহরের শালিমার রেস্তোরায়  আ্ওয়ামী লীগে তাঁর সমর্থিত  অংশের এক জরুরী সভায় তিনি এই ঘোষনা দেন। এই সভায় স্থগিত কমিটির সভাপতি মাহমুদ মিয়া এবং তার সমর্থকদের কেউ উপস্থিত ছিলেন না।মোজাহিদুল ইসলামের পরিচালনায় এতে বক্তব্য রাখেন বেলাল সামসুল, খালেদ সাইফুল্লাহ, সোহেল রানা, পারভেজ, রঞ্জিত,  মতিন মিয়া, সাজ্জাদ হোসেন সুইট,  মোহাম্মদ হাসান, জসিম চৌধুরী, সুদিপ সোম রিংকু এবং কুইবেক আওয়ামী লীগের সভাপতি মুন্সি বশির।

একই দিনে সন্ধ্যায় শহরের স্টর প্লাস রেস্তোরায় অন্টারিও আ্ওয়ামী লীগের পৃথক সভায় আজিজুর রহমান প্রিন্সকে সভাপতি এবং ইতরাদ জুবেরী সেলিমকে সাধারন সম্পাদক করে কমিটি ঘোষনার তীব্র প্রতিবাদ জানানো হয়। ওই সভায় বলা হয়, নেত্রীর নির্দেশনার দোহাই দিয়ে দলের নিয়ম, নীতি ও গঠনতন্ত্রকে উপেক্ষা করে  নিজের সমর্থকদের সভায় এই কমিটি ঘোষনা করেছেন আজিজুর রহমান প্রিন্স।

প্রসঙ্গত, মাহমুদ মিয়া এবং আজিজুর রহামন প্রিন্সকে যথাক্রমে সভাপতি এবং সাধারন সম্পাদক করে কানাডা আ্ওয়ামী লীগের কমিটি গঠন করা হলেও দুই জনের নেতৃত্বে দলে দুটি উপদলীয় ধারা তৈরি হয়। সভাপতি এবং সাধারন সম্পাদকের নেতৃত্বে আলাদাভাবে দলীয় কর্মসূচী পালিত হতে থাকে। গত সেপ্টেম্বর মাসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিউইয়র্কে এলে দুই অংশই শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করতে যায়। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠকে দুই গ্রুপ পরষ্পরের বিরুদ্ধে অনঢ় অবস্থান নিলে শেখ হাসিনা  কানাডা আ্ওয়ামী লীগের কমিটি স্থগিত করে দেন। তারপর থেকেই কানাডা আ্ওয়ামী  লীগের কার্যক্রম স্থগিত থাকে।

গত ২২ ফেব্রুয়ারি স্থগিত কমিটির সাধারন সম্পাদক আজিজুর ররহমান প্রিন্সের নামে  জরুরী সভার একটি বিজ্ঞপ্তি প্রচার করা হয়। তাতে বলা হয় ‘আসছে ১ লা মার্চ ২০২০ রোববার কানাডা আ্ওয়ামী লীগের এক জরুরী সভা  আহ্বান করা হয়েছে। দলের স্থগিত আদেশ প্রত্যাহার, কার্যক্রম বেগবান করা,নেতাকর্মীদের পূণরায় উজ্জীবিত করা এবং মুজিব বর্ষ উদযাপনের কর্মসূচী ঘোষনাসহ ‘জননেত্রীর নির্দেশ’ ঘোষিত হবে। দলের সকল নেতাকর্মী ( টরন্টো, মন্ট্রিয়ল অটোয়াসহ)কে এই সভায় উপস্থিত  থাকতে বিশেষভাবে অনুরোধ করা হয়েছে।’

১ মার্চ শালিমার রেস্তোরায় আয়োজিত সভায় আজিজুর রহমান প্রিন্স কানাডা আ্ওয়ামী লীগের প্রেসিডেন্ট হিসেবে  দায়িত্ব নেয়ার ঘোষনা দেন। টরন্টোর বাংলা পত্রিকা সিবিএন ওই সভার একটি ভিডিওচিত্র প্রকাশ করেছে। তাতে আজিজুর রহমান প্রিন্সের বক্তৃতা রয়েছে।

ওই সভায় তিনি বলেন, দুই বছর আগেই আমি সিদ্ধান্ত নেই দলের সভাপতির (মাহমুদ মিয়া) সঙ্গে কাজ করবো না। গত সেপ্টেম্বরে নেত্রী যখন নিউইয়র্কে আসেন তখন তাকে বলি এই প্রেসিডেন্টের সাথে কাজ করবো না। সেখানে অনেক কথাবার্তা উঠেছে, অনেকের কথাই নেত্রী শুনলেন। তখন নেত্রী বলেন তা হলে তোমাদের কার্যক্রম স্থগিত করে রাখো ‘

 তিনি বলেন, ‘বার বার আমার চেষ্টা ছিলো নেত্রীর কাছ থেকে অনুমোদন নিয়ে এই স্থগিতাদেশ  প্রত্যাহার করে নিয়ে আসা। আমি তিনবার দেশে গেছি। কিন্তু কোনোববারই এই বিষয়টি নেত্রীর কাছে উপস্থাপন করার সুযোগ হয়নি।সবশেষে এইবার যখন আমি গেলাম আমাকে চারবার অনুমতি দেয়া হলো, পাস দেয়া হলো । কিন্তু গণভবনে যা্ওয়ার পর বিভিন্ন কারনে  নেত্রীর সঙ্গে আমার সঙ্গে দেখা হলো না ‘

তিনি বলেন, ‘নেত্রীর সাথে আমার  প্রায়ই  ইমেইল যোগাযোগ হয়। নেত্রী তার জবাবও দেন কখনো কখনো। আমার এই আবেদনটি পড়ে নেত্রী সঙ্গে সঙ্গে জবাব দিয়েছেন, বলেছেন তুমি দায়িত্ব নাও, মুজিব বর্ষ পালন করো। নেত্রীর নির্দেশ আসার পরপরই আমি সহকর্মীদের সাথে আলাপ করি কি করবো। তখনি সিদ্ধান্ত হয় সবাইকে ডেকে আমরা একটি সভা করবো।  জননেত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ মোতাবেক  আমরা নতুন দায়িত্ব গ্রহন করবো এবং আমি দলের  প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব গ্রহন করছি। এই সিদ্ধান্তটি আমি জননেত্রী শেখ হাসিনাকে সঙ্গে সঙ্গে জানিয়ে দিয়েছি।’ এই সময় তিনি ইতরাদ জুবেরী সেলিমকে সাধারন সম্পাদক হিসেবে ঘোষনা দেন।


সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে
Designed & Developed by Tiger Cage Technology
উপরে যান