টরন্টোয় মাতৃভাষা সৌধ নির্মানে প্রবাসীদের সহায়তা কামনা

Mon, Feb 11, 2019 1:36 AM

টরন্টোয় মাতৃভাষা সৌধ নির্মানে প্রবাসীদের সহায়তা কামনা

নতুনদেশ ডটকম: টরন্টোয়  আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা সৌধ নির্মানে আর্থিক সহায়তা নিয়ে এগিয়ে আসার জন্য কানাডা প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে ‘অর্গানাইজেশন ফর টরন্টো ইন্টান্যাশনাল মাদার ল্যাংগুয়েজ ডে মনুমেন্ট (ওটিইএমএলডি) । রোববার বিকেলে স্থানীয় একটি রেস্তারায় আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সংগঠনের নেতৃবৃন্দ  কানাডার ৮০ হাজার প্রবাসী বাংলাদেশিদের প্রত্যেককে মাত্র ১০ ডলার করে অনুদান দেয়ার অহ্বান জানান।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, টরন্টোয় আন্তর্জাতিক মাতুভাষা সৌধ  নির্মানের জন্য দেড় লাখ ডলার তহবিল সংগ্রহের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে। এই তহবিল হাতে পেলেই সৌধ নির্মানের কাজ শুরু করা সম্ভব।

ওটিইএমএলডি এর প্রেসিডেন্ট ম্যাক আজাদের সভাপতিত্বে এই সংবাদ সম্মেলনে সূচনা বক্তব্য রাখেন মহাসচিব রিজ্ওয়ান আহমেদ। ব্যারিষ্টার চয়নিকা দত্ত, প্রকৌশলী সৈয়দ গফফার প্রমূখ মাতৃভাষা সৌধ নির্মানের অগ্রগতি তুলে ধরে  বক্তব্য রাখেন।  

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, টরন্টো সিটি কর্পোরেশন মাতৃভাষা সৌধ নির্মানের জন্য বাঙালি অধ্যূষিত ডেনফোর্থ  সংলগ্ন টেইলর ক্রিক পার্কে জায়গা বরাদ্দ করেছে। ইতিমধ্যে মাতৃভাষা সৌধের নক্সাও অনুমোদিত হয়েছে। ‘সন্তোষজনক’ পরিমান তহবিল সংগ্রহ হলেই সৌধের নির্মান কাজ শুরু করা সম্ভব হবে বলে তারা জানান।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, ব্যারিষ্টার চয়নিকা দত্ত তহবিল সংগ্রহের দায়িত্বে রয়েছেন। বাংলাদেশি কমিউনিটি ছাড়াও অন্যান্য কমিউনিটি থেকেও অনেকে আর্থিক সহায়তার হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন। তারা সর্বস্তরের বাংলাদেশিদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

এক প্রশ্নের জবাবে সংগঠনের কর্মকর্তারা জানান, ভাষা সৌধ নির্মানে সহযোগিতার জন্য তারা অটোয়ায় বাংলাদেশ হাই কমিশনের কাছে চিঠি লিখেছেন। নতুন চাল হ্ওয়া টরন্টোর কনস্যুলেট অফিসের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকতারা তাদের সাথে এই নিয়ে আলোচনা্ও করেছেন। তবে হাই কমিশনের পক্ষ থেকে সুনির্দিষ্টভাবে আর্থিক সহায়তার ব্যাপারে কোনো কিছু বলা হয়নি।

কর্মকর্তারা বলেন, আমরা সাধারন মানুষেরা মিলে একটি অসাধারন কাজ করার উদ্যোগ নিয়েছি। আমরা ৮০ হাজার প্রবাসী সাধারন মানুষের কাছেই আমাদের অহ্বান জানাতে চাই। ৮০ হাজার প্রবাসীর প্রত্যেকের কাছ থেকে মাতৃভাষা সৌধের জন্য ১০ ডলার করে সহায়তা চাই।


সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে
Designed & Developed by Tiger Cage Technology
উপরে যান