কানাডায় চিকিৎসা  ও স্বাস্থ্যসেবা পেশায় চাকরি পাওয়া নিয়ে ব্যতিক্রমী আয়োজন

Mon, Nov 20, 2017 12:01 AM

কানাডায় চিকিৎসা  ও স্বাস্থ্যসেবা পেশায় চাকরি পাওয়া নিয়ে ব্যতিক্রমী আয়োজন

বি জামান মুকুল : কানাডার মূলধারায় চিকিৎসক এবং চিকিৎসা সেবাখাতে  ক্যারিয়ার গড়ে তোলার খুটিঁনাটি তথ্য প্রবাহ তুলে ধরার লক্ষ্য নিয়ে ব্যতিক্রমী এক ইনফরমেশন সেশন অনুষ্ঠিত হয়েছে গত শনিবার।

বিসিসিবি  জব সাপোর্ট টিম এবং হেলথকেয়ার ফোরামের যৌথ উদ্যোগে বাংলাদেশী ইমিগ্র্যান্ট ডাক্তার এবং হেলথকেয়ার প্রফেশনালরা অংশ নেন।  কমিউনিটিতে প্রথমবারের মতো  চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যসেবা খাতের পেশাজীবীদের  এই ধরনের  গুরুত্বপূর্ণ এবং তথ্যপূর্ণ  সেশন অনুষ্ঠিত হলো।  এর আগে ঠিক এই ধরণের একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ এবং তথ্যপূর্ণ সেশন, বিশেষ ভাবে আমাদের দেশের ডাক্তার বা হেলথকেয়ার প্রফেশনালদের জন্য কখনো হয়নি। আমরা কম বেশি সবাই জানি যে ডাক্তারদের জন্য হেলথকেয়ার প্রফেশনে ঢোকার জন্য প্রয়জনীয় তথ্যের বা যোগাযোগের  বড়ো অভাব এবং অধিকাংশ ডাক্তার তার প্রফেশনে ঢুকতে হিমশিম খাচ্ছেন।  আমরা অনেকেই  বিশেষ ভাবে ডাক্তাররা ভালো করে হয়তো জানি না অবস্থা যত প্রতিযোগিতামূলকই হোক না কেন আমাদের অনেক বাংলাদেশী ডাক্তার এবং হেলথকেয়ার প্রফেশনালরা এখানে ভালো কাজ করছেন। এবং সেটা যে শুধু রেসিডেন্সি ম্যাচ করে লাইসেন্স নিয়ে ক্লিনিসিয়ান হিসাবে প্রাকটিস করছেন তা নয়, এর বাইরেও অনেক সুযোগ আছে এবং উনারা সে সব জায়গায় কাজ করছেন এবং খুব ভালোভাবে কাজ করছেন।

আমি মাত্র গত দুই মাসের খোঁজ খবরে এধরণের অন্তত ১৫-২০ জনের খবর পেয়েছি এবং আপনাদর দোয়ায় এদের প্রায় ১০/১২ জনকে গত শনিবারের সেশনে আনতে পেরেছি। উনাদের মধ্যে এখানকার বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর এবং গবেষক থেকে শুরু করে, প্র্যাক্টিস ক্লিনিসিয়ান, ডেন্টিস, নার্সিং, আল্ট্রাসোনোগ্রাফার, ডাটা ম্যানেজার, স্লীপ ক্লিনিক-গবেষক, মেন্টাল হেলথ প্রফেশনাল ছিলেন। তারা শেয়ার করেছেন তাদের এই পর্যায়ে পৌঁছানোর কথা এবং গুরুত্বপূর্ণ অনেক টিপস, যেটা আপনি বইপত্রে বা অনেকসময় ইস্কুলেও পাবেন না।

আমরা প্রোগ্রামের শুরুতেই ফিডব্যাকের জন্য একটি করে ফর্ম সকল পার্টিসিপেন্টদের কাছে দিয়ে দেই। তাদের ফিডব্যাকের ভিত্তিতেই আমি প্রোগ্রামটির গুরুত্ব সমন্ধে বলছি। সমস্ত পার্টিসিপেন্টদের মধ্যে শুধু মাত্র দু জন বলেছেন Good বাদ বাকি সবাই লিখেছেন Excellent. উল্লেখ এই ফর্মে নাম লেখার কোনো জায়গা রাখা হয়নি কারণ যাতে করে তারা  নির্দ্ধিধায় পক্ষপাতহীন ফিডব্যাক দিতে পারেন। প্রোগ্রামের ইমপ্রুভমেন্ট এর জায়গায় কেউকেউ সময় স্বল্পতা এবং আরো সাবজেক্ট স্পেসিফিক প্রোগ্রাম করার জন্য বলেছেন। আগেই বলা হয়েছে এটি ছিল একটি ইন্ট্রোডাক্টরি সেশন তাই আপনাদের সহযোগিতা থাকলে ভবিষ্যতে অবশই বিসিসিবি  জব সাপোর্ট এবং হেলথকেয়ার টিম সেটা করার চেষ্টা করবে। আমার এক যুগের বেশি হয়ে গেলো এখানে কিন্তু এর মধ্যে ডাক্তারদের জন্য এরকম প্রোগ্রাম আমি আমাদের কমিউনিটিতে আগে কখনো দেখিনি তাই আমরা যখন সবার সহযোগিতায় একিট বেবি স্টেপ অত্যন্ত সফলতার সাথে নিতে পেরেছি তখন সামনে আরো কিছু করা সম্ভব বলে আমি মনে করি। আমি এই লেখার শেষে অংশগ্রহণকারীদের ফিডব্যাকের কিছু অংশ তুলে ধরবো, তাদের কাছ থেকেই জানবেনা প্রোগ্রামটি কেমন ছিল।

এখন কে এবং কি আলোচনা করলেন।

ডাক্তার শফি ভূইয়া  তার পরিচালিত রায়েরসন বিশ্ববিদ্যালয়ের কানাডার ইতিহাসে প্রথম বিদেশি ডাক্তারদের জন্য নন-লাইসেন্স মেডিকেল প্রফেশনালদের জন্য ITMD সম্মন্ধে বিস্তারিত বললেন। আরো বললেন টরন্টো বিশ্ববিদ্যালয়ের  স্নাতক পর্যায়ে গ্লোবাল পাবলিক হেলথ এর উপর যে প্রোগ্রামটি উনি পড়ান সেটা সম্মন্ধে। আমরা এনেছিলাম উনার উক্ত প্রোগ্রামের বর্তমান ছাত্র ড. মামুন  এবং ভূতপূর্ব  ড. শ্রভ্রকে। যাতে করে তারা তাদের কাছে প্রোগ্রাম কেমন লাগছে বা তাদের প্রফেশনাল চাকরি পেতে প্রোগামটি কিভাবে সহায়তা করেছে সেটা জানার জন্য। তাঁরাত্যন্ত  গুরুত্বপূর্ণ তথ্য শেয়ার করেছেনএর পাশা পাশি অনেক বেসিক কিন্তু চাকরির জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ কথাবার্তাও বলেছেন।

ডাক্তার শোয়ের যিনি একজন লাইসেন্সড ফিজিশিয়ান এবং বর্তমানে প্রাক্টিস করছেন, বলেছেন রেসিডেন্সি ম্যাচিংএর  ব্যাপারে  অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ কিছু টিপস, সেটা লেটার অফ ইনটেনশন থেকে শুরু করে রেফারেন্স লেটার, রীক্ষার টিপস, ভিতরের কিছু তথ্য, এমনকি ইন্টারভিউয়ের ড্রেস আপ সম্মন্ধেও আসলে যথাপোযুক্ত খোঁজ খবর নিয়ে যথায চেষ্টা করলে রেসিডেন্সি ম্যাচিং যত কঠিন ভাবা হয় ততো কঠিন না। ছাড়া আরও ২/১ জনের সাথে কথা হয়েছে যারা পরীক্ষা দিচ্ছেন  এবং ম্যাচ হয়ে গেছে। উনাদের সাথে আলাপের ভিত্তিতে এবং উনাদের তথ্য মতো আমার গবেষণা থেকে এই কথাগুলি বললাম।

ডাক্তার শাহরিয়ার  দীর্ঘদিন কাজ কছেন  সানিব্রুক  হাসপাতালে। তিনি বলেছেন জাস্ট লাইসেন্সিং ছাড়া ডাক্তারদের জন্য আরো কত কত রেগুলেটেড প্রফেশন আছে। তিনি  সবার জন্য সেই সমস্ত প্রফেশনের একটি তালিকা  এবং কিছু গুরুত্বপূর্ণ নির্দেশনা লিখিত আকারে দিয়েছেন। আমি সময় করে সেটি BCCB হেলথকেয়ার ফোরামের পেজে পোস্ট করে দিবো। উনি আমার পাঠানো একটি রেসুমিতে কিছু কমেন্ট দিয়ে পাঠিয়েছেন। আমি সেটাও আপনাদের ইমেইলে পাঠিয়ে দিবো, তাহলে বুঝতে পারবেন কোন জায়গায় কিভাবে লিখতে হবে।

ডাক্তার মাহফুজ  একজন লাইসেন্সড ডেন্টিস্ট এবং বর্তমানে চার চারটি লোকেশনে কাজ করছেন। তিনি  বলেছেন কিভাবে আপনি ডেন্টিস্টের লাইসেন্স নিতে পারেন।   তিনি জানিয়েছেন, বাংলাদেশে তাকা অবস্থায়ই তিনি কানাডার লাইসেন্সিং এর পড়াশোনা শুরু করেছিলেন।

ডাক্তার  এহসান আগামী   ফেব্রুয়ারী থেকে বিসএসসি নার্সিং শুরু করবেন।  তিনি বলেছেন তাঁর  বিভিন্ন চড়াই উৎরাই পার হয়ে এবং বিভিন্ন মানুষের অনুৎসাহী কথাবার্তা উপেক্ষা করে কিভাবে এই পর্যন্ত আসলেন। বলতে পারেন উনার তো চাকরি হয় নি, উনার কাছ থেকে কি শুনবো। আমি আপনাদেরকে নিশ্চিত করে বলতে পারি যে তাঁর  পড়াশোনা  শেষ হলে উনি অবশ্যই একটি খুব ভালো চাকরি পাবেন সেটা শিক্ষকতা অব ট্রেইনার থেকে শুরু করে আরো অনেক চাকরি হতে পারে । তার নার্সিং প্রোগ্রামের ভর্তির একটি ক্রাইটেরিয়া পূরণের জন্য তিনি TDSB তে গ্রেড ১১/১২ এ পর্যন্ত ভর্তি হয়েছেন। একেই বলে guts, getting out from your comfort Zone অথবা out of the box thinking. আমি তাঁর কাছ থেকে তাঁর এ পর্যন্ত আসার জার্নি সমন্ধে শুনতে চেয়েছিলাম, উত্তরে তিনি তাঁর  প্রতিটি পদক্ষেপ সম্মন্ধে এমন ভাবে বললেন তাতে আমার আর বুঝতে বাকি নেই যে আগামী ৩/৪ বছর পরে আমাকে এখানে আরো একটি অসাধারণ সাকসেস স্টোরি লিখতে হবে। তার প্রফেশনে যাওয়ার যে পদ্ধতি বা পদক্ষেপ সেটা শুধু ডক্তারদের জন্য উপকারী নয়, অন্য সব প্রফেশনের জন্যও উপযোগী।

ডাক্তার জাহিদা   বর্তমানে কাজ করছেন Ultrasound Technician হিসাবে। তিনি বলেছেন মাত্র ২০১৩ থেকে ২০১৬র মধ্যে উনি কিভাবে এই প্রফেশনে প্রবেশ করলেন। এর মধ্যে পড়াশুনা থেকে শুরু করে সারভাইভাল জব, সবই ছিল। উনি ছিলেন এক ধাপ এগিয়ে। পড়াশুনার পর্ব দেশ থেকেই শুরু করেছিলেন। বলেছেন উক্ত প্রফেশনের জন্য সার্টিফিকেশন এবং লাইসেসিনিং এর কথা। উনি সিম্পল লুকিং কিন্তু অত্তান্ত কনফিডেন্ট একজন মানুষ।

ডাক্তার শুভ্র  বর্তমানে কাজ করছেন সেন্ট মাইকেল হাসপাতালে কোয়ালিটি ইমপ্রুভমেন্ট ডিসিশন সাপোর্ট স্পেশালিস্ট হিসাবে। উল্লেখ্য, তিনি কানাডা আসার এবং ITMD ব্রিজিং প্রোগ্রাম শেষের ৭ মাসের মাথায় প্রথমে Markham Stoufville তারপর সেন্ট মাইকেল চাকরি পান। উনাকে আমি  ব্যক্তিগতভাবে জিজ্ঞেস  করেছিলাম ITMD ব্রিজিং প্রোগ্রাম উনাকে কিভাবে চাকরি পেতে সহায়তা করেছিল। একটি কথা না বললেই না। উনি আপনাদের অনেকের মতো very highly qualified এবং experienced একজন ডাক্তার যার বাংলাদেশ এবং আমেরিকাতে কাজ এবং পড়াশুনার ইতিহাস আছে। তো উনি গিয়েছিলেন ITMD ব্রিজিং প্রোগ্রামে শিক্ষকতার খোঁজে। ডা. শফি ভূইয়া  উনাকে বললেন আপনার huge এবং very impressive কোয়ালিফিকেশন আছে কিন্তু আগে আপনি ITMD ব্রিজিং প্রোগ্রামে ভর্তি হয়ে যান, তার পর দেখা যাবে। উনার কথাটি শুনে একটু খারাপ লাগলেও উনি বাসায় ফিরে গিয়ে সিদ্ধান্ত নিলেন উনি ছাত্র হয়েই শুরু করবেন, যে কথা সেই কাজ। এর পর আর তাকে পিছে তাকাতে হয়নি। উনি বলেছেন ভলান্টারিং কিভাবে উনাকে হেল্প করেছে। এবং একটি পরিছন্ন ও প্রফেশনাল ইমেইল কিভাবে উনাকে একটি গুরুত্বপূর্ণ ভলান্টারিং এর সুযোগ দিয়েছিল সেটাও বলেছেন। আপনি এই ফোরামে বা পত্রপত্রিকায় নিয়মিত চোখ রাখুন আমি ভবিষতে উনার সাকসেস স্টোরি এবং সেটায় পৌঁছানোর জার্নি সম্মন্ধে লিখবো। এবং দেখবেন চেষ্টার মতো চেষ্টা করলে কিভাবে সম্ভব।

ডাক্তার নাজরানা   যিনি এখন একাধারে সহকারী গবেষক হিসাবে একটি Sleep ক্লিনিকে কাজ করছেন, ভলান্টারি করছেন এবং ক্লিনিকাল রিসার্চ এর উপরে পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিপ্লোমা করছেন। অত্তান্ত self-critic এবং self-directive person. আর এই জিনিসটি আপনার উন্নয়নের জন্য খুবই প্রয়জন। উনি বলেছেন, উনার কোনো নেটওয়ার্ক না থাকা সত্ত্বেও ভলান্টারিং এবং proactive এপ্রোচ উনাকে কিভাবে এ পর্যন্ত আসতে সহায়তা করেছে। উনি আমাদের BCCB হেলথকেয়ার ফোরামের একজন গুরুত্বপূর্ণ মডারেটর এবং সহযোগী। উনি অহরহই উনার সাধ্যমত আমাদের ডাক্তার ভাইবোনদের সাহায্য করে থাকেন দিয়ে থাকেন।

ডাক্তার হোমায়রা  কাজ করছেন একজন কেস ম্যানেজার হিসাবে Forster Financial কোম্পানিতে। হা Financial হলে কি হবে, উনি একজন ডাক্তার হয়েও নিজেকে প্রমান করেছেন উনি Financial Data নিয়েও কাজ করতে পারেন। ডিসেম্বর থেকে উনি শুরু করবেন Data System Administrator হিসাবে।

আমি মোটামুটি সংক্ষেপে চিত্রটি তুলে ধরার চেষ্টা করলাম। পুরা আলোচনা বা বিভিন্ন টিপস তুলে ধরতে হলে অনেক অনেক লিখতে হবে। যাহোক আপনারা ফোরামের পেজে নিয়মিত চোখ রাখলে খবরাখবর জানতে পারবেন। এখানে সিস্টেমটি যত কার্যকরী বা ফ্রেন্ডলি হওয়ার কথা ছিল তা এখনো হয়ে ওঠেনি কিন্তু সেটা ভেবে  frustrated বা depressed হয়ে বসে থাকলে চলবে না। যতটুকু সুযোগ আছে তার মধ্যে থেকেই কিছু একটা বের করে নিতে হবে, সে জন্য নিজের চেষ্টার সাথে অন্যের কিছু সাপোর্ট বা কানেকশন প্রয়জন হয়, আর সে জন্যই বিসিসিবি  জব সাপোর্ট টিম তাদের সাধ্যমত কাজ করে যাচ্ছে। কমুনিটির জন্য। বিসিসিবি  বা এর কোনো  ব্যক্তিই  পেইড নয়, সবাই তাদের চাকরি, ফ্যামিলি এবং অন্যান্য  ব্যস্ততার মাঝে absolutely ভলান্টারী বেসিসে কমুনিটির জন্য কাজ করে যাচ্চেন।  আমরা দেখে এসেছি বা জেনে এসেছি যে আমাদের কমিউনিটি অন্যান্য  কমুনিটির মতো একে পরের সহযোগিতায় এগিয়ে আসে না, সে কথা যেমন সত্যি ছিল তেমন সেটির পরিবর্তনও এসেছে এবং বিসিসিবির সদসদের প্রতিনিয়ত একে পরের সহযোগিতার মনোভাবে সেটার প্রমান।

অন্যান্য  আরো কিছু  গ্রুপও  ইদানিং এ বিষয়ে কাজ করছে। আমি নিজেও অনেক অনেক  ব্যাপারে  উপকৃত হয়েছি। কোনো একটি বিষয়ে প্রশ্ন থাকলে আগে যেমন অপেক্ষা করতে হতো, কিন্তু এখন আর তেমন করতে হয় না। একটি প্রশ্ন ফোরামের পেজে লিখলে মুহূর্তের মধ্যে অনেক উত্তর পাওয়া যায়। At least now we all can feel that we are not alone .

প্রোগ্রাম ভালো লাগা প্রশ্নের সাথে প্রশ্ন ছিল সমালোচনারও, সেখানে কেউ কেউ লিখেছেন সময়ের  ব্যাপারে  এবং আলোচনাটি ভব্যিষতে বিশেষ কোনো সাবজেক্ট অনুযায়ী করার। আমরা প্রোগ্রামের শুরুতে বলেছিলাম এটি একটি ইন্ট্রোডাক্টরি সেশন তাই এটি হবে একটি আউটলাইন-মূলক, হয়তো পরের দিকে যারা যোগ দিয়েছেন তারা এই তথ্য মিস করেছেন। যাহোক পরবর্তী প্ল্যান সেটাই। আর তাছাড়া  প্রথম প্রোগ্রামে আমাদের ইচ্ছা  ছিল আপনাদেরকে এটা তুলে ধরা যে, চাকরির স্ট্রাগলে আপনি যেমন একা নন তেমনি আপনাদের মতো অনেকেই হেলথকেয়ার প্রফেশনে বিভিন্ন পেশায় কাজ করছেন, আপনি চাইলে এবং চেষ্টা করলে আপনিও এদের মতো একজন হতে পারেনআমি অত্তান্ত দৃঢ়তার সাথে বলতে পারি আপনাদের মধ্যে অনেকে আছেন যারা আমাদে গেস্ট স্পিকারদের থেকে অনেক ট্যালেন্ট। তবে একটি কথা আপনি যত ট্যালেন্ট  আ অভিজ্ঞ হন না কেন, শুধু মাত্র একটা কোর্স বা ডিগ্রী করলে বা জাস্ট সিম্পলি একটি রেসুমে লিখে পাঠালেই চাকরি হবে না। আপনাকে আপনার ১০০% এফোর্ট দিতে হবে।

আরো একটি কথা, সর্ব প্রথমে আপনাকে নির্ণয় করতে হবে আপনার পরিবার, সারভাইবা, সামর্থ এবং শক্তি বিবেচনায় আপনার হাতে কি পরিমাণ সময় বা সামর্থ আছে, ঠিক সেই সময়টুকু এবং সামর্থ্য অনুযায়ী আপনাকে বেছে  নিতে হবে আপনার চেষ্টার পদ্ধতি। একজন বললো অমুক প্রোগ্রাম করে আমার চাকরি হয়েছে, তাই বলে আপনিও নেমে গেলেন সেই পথে কিন্তু দেখা গেলো সে প্রোগ্রামটি শুধু মাত্র পাশ করার মতো সময় বা সামর্থ্য আপনার আছে কিন্তু ১০০% এফোর্ট দেওয়ার মতো অবস্থা আপনার নেই। তাহলে আপনার টাকা, সময়, শক্তি সবিই নষ্ট হবে। আবার দেখা গেলো সেই লোকটির ইংরেজি হয়তো আপনার থেকে ভালো।

আমার এক বন্ধু  একটি ব্রিজিং প্রোগ্রামে ইংরেজি পরীক্ষায় তিন তিনবার ফেল করে, তাপরেও সে দমেনি, সে তখন সব কিছু বাদ দিয়ে ভর্তি হয়ে যায় প্রে প্রেফেশনাল ইংলিশ কমিউনিকেশন  কোর্সে। কোর্স শেষে পরীক্ষা দেয় IELTS, অর্জন করে প্রয়জনীয় স্কোর এবং ভর্তি হন তার কাঙ্খিত ব্রিজিং প্রোগ্রামে (IESW)। তিনি  কিন্তু আরো ২/১ কলেজে তাঁর যে IELTS  মার্কস ছিল তা দিয়ে ভর্তি হতে পারতেন, এবং একটি প্রাইভেট কলেজও তাকে ভর্তি করাবে বলেছিলো কিন্তু উনি উনার টার্গেটেড প্রোগ্রামের চেষ্টা করেছেন, আর এই সময় ধরে উনি ট্যাক্সি চালিয়েছেন। যাহোক বর্তমানে উনি ভালো কাজ করছেন, বাড়ি, গাড়ি ছেলেমেয়ে নিয়ে  ভালো আছেন। তারই সাথে যিনি একবার চেষ্টার পরে সহজে অন্য জায়গায় ভর্তি হয়ে ডিপ্লোমা করে এখন পর্যন্ত সিকিউরিটির কাজ করে চলেছেন। আশা করি ১০০% এফোর্ট বলতে কি বোঝাতে  চাচ্ছি  তা নিশ্চয় বুঝতে পারছেন। সে যেহেতু আমার প্রফেশনে আমি তাকে আরো একটু বেশি বেতনের অন্য একটি কাজের জন্য বলেছিলাম, সে বলেছিলো না তার যোগ্যতা এবং সামর্থ অনুযায়ী সেটার দিকে আগানো বোকামি হবে তার ওই সিদ্ধান্তের কারণে সে এখন খুব ভালো আছেন। আগামীতে তার স্টোরি আমি লিখবো। উনাদের মত লোক আহামরি কিছু না করে ফেললেও উনাদের স্টোরি আমাদের মতো হাজারো ইমিগ্র্যান্টদের  জন্য অত্তান্ত  প্রেরণাদায়ক।


সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে
External links are provided for reference purposes. This website is not responsible for the content of externel/internal sites.
উপরে যান