৮ময় বর্ষ সংখ্যা ২৯ | সাপ্তাহিক  | ২২ মার্চ ২০১৭ | বুধবার
কী ঘটছে জানুন, আপনার কথা জানান

কানাডারও বিমানের মূল কেবিনে বড় ধরনের ইলেকট্রনিক সামগ্রী নিষিদ্ধ করার চিন্তা

নতুনদেশ ডটকম

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পর কানাডাও এবার বিমানের মূল কেবিনে  মোবাইল ফোন ছাড়া সব ধরনের ইলেকট্রনিক পণ্য বহন নিষিদ্ধ করার চিন্তা করছে।

 পরিবহণ মন্ত্রী মার্ক গার্নেও এই আভাস দিয়ে সাংবাদিকদের বলেছেন, কানাডা মার্কিন গোয়েন্দা সংস্থার দেওয়া তথ্য পর্যালোচনা করছে।  মধ্যপ্রাচ্যের কয়েকটি দেশ থেকে ছড়ে আসা বিমানের যাত্রীদের মোবাইল ফোন ছাড়া সব ধরনের ইলেকট্রনিক পণ্য মূল কেবিনে বহন  নিষিদ্ধ করা হবে কী না- মার্র্কিন গোয়েন্দাদের দেওয়া তথ্য পর্যালোচনার পরই চূড়ান্ত হবে। তিনি জানিয়েছেন, তারা দ্রুতই এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন।

কানাডা সরকার শেষ পর্যন্ত এই ধরনের সিদ্ধান্ত নিলে বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশির উপরও তার প্রভাব পড়বে। প্রসঙ্গত, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের  ‘ভ্রমন নীতিমালার’ আওতায় পড়া নয়টি এরয়ারলাইন্সের আটটিরই ফ্লাইট  কানডায় চলাচল করে।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র জর্দান, কুয়েত,মিশর, তুরষ্ক,সৌদি আরব, মরক্কো, কাতার, সংযুক্ত আরব আমিরাত, দুবাই, আবু ধাবী থেকে ছেড়ে আসা বিমানে মোবাইল ফোন এবং স্মার্ট ফোনছাড়া সব ধরনের ইলেকট্রনিক পণ্য বিমানের  মূল কেবিনে বহন নিষিদ্ধ করেছে।

ইউএস হোমল্যান্ড সিকিউরিটির শীর্ষ কর্মকর্তার সাথে কানাডা সরকারের উচ্চ পর্যায়ের টেলিফোন সংলাপের উদ্ধৃতি দিয়ে পরিবহণ মন্ত্রী বলেন, তিনি আমাদের পরিস্থিতি সম্পর্কে সচেতন করেছেন। সরকারি পর্যায়ে আমরা এই সব তথ্য খতিয়ে দেখছি। দ্রুতই আমরা আমাদের সিদ্ধান্ত নেবো।

কি ধরনের নিরাপত্তা সংক্রান্ত তথ্য মার্কিন গোয়েন্দারা দিয়েছে- সে ব্যাপারে মন্তব্য করতে রাজি হননি কানাডীয়ান মন্ত্রী, এমন কি কখন তারা এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন- তাও জানাতে রাজি হননি। মন্ত্রী বলেন,’অমরা অতি দ্রুতই এই ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবো।

পাঠকের মন্তব্য

শ্রেণীভুক্ত বিজ্ঞাপন

জন্মদিন/শুভেচ্ছা/অভিনন্দন


শ্রেণীভুক্ত বিজ্ঞাপন

কাজ চাই/বাড়ি ভাড়া


শ্রেণীভুক্ত বিজ্ঞাপন

ব্যক্তিগত বিজ্ঞাপন/অনুভূতি


 
 
নিবন্ধন করুন/ Registration