প্রবাসে সংগঠন নিয়ে নতুন করে ভাবছে আওয়ামী লীগ

Fri, Oct 20, 2017 2:29 AM

প্রবাসে সংগঠন নিয়ে নতুন করে ভাবছে আওয়ামী লীগ

মিলটন হাসনাত : সেইসব দিন শেষ। মন্ত্রী-এমপি সিডনি এলে এয়ারপোর্টে ছুটে যাওয়া কিংবা নির্জন কোন রেস্তোরায় বিএনপি-জামায়াত আর এলাকার কিছু লোকজন নিয়ে চুপেচাপে অনুষ্ঠান করার হাইব্রিড রাজনীতির এখন আর বেইল নাই। মন্ত্রী-এমপিদের পিছপিছ ঘোরা আর গিফট কিনে দেওয়া পার্টিকে আওয়ামী লীগের সন্মানিত একজন এমপি বললেন 'হাঁটা পার্টি'। তার ভাষ্যমতে, এইসব হাঁটা পার্টির কারণেই প্রবাসে পার্টির বদনাম হয়, রাজনীতির কোন উপকার হয় না।

এখন দিন বদলেছে। কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগ প্রবাসের সমর্থক-অনুসারী সংগঠন নিয়ে নতুন করে ভাবছে। প্রবাসে আওয়ামী লীগের নামে থাকা সংগঠনগুলোর ভূমিকা কী হবে তা নিয়ে ব্যাপক চিন্তাভাবনা-আলোচনা চলছে। রাজনীতির নামে প্রবাসে 'হাঁটা পার্টির' দৌরাত্ম্য আর কোন্দল-বিভেদ নিয়ে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দও বিরক্ত। সম্প্রতি একজন সন্মানিত এমপি সিডনিতে এক অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে অনুষ্ঠানের খাবারের পুরো বিল নিজের পকেট থেকে দিয়ে দেন। প্রবাসের রাজনীতিতে পরিবর্তনের এই যে হাওয়া বইছে তা যত তাড়াতাড়ি অনুধাবন করা যায়, ততই মঙ্গল।

অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগও এই পরিবর্তনের বাইরে নয়। এ লক্ষ্যে কেন্দ্র ও স্থানীয়ভাবে কাজও চলছে। 
রাজনীতির নতুন বাস্তবতা মেনে অস্ট্রেলিয়ায় ঐক্যবদ্ধ আওয়ামী লীগ এখন স্রেফ সময়ের ব্যাপার। তবে এই ঐক্যবদ্ধ নবযাত্রায় কমিউনিটির সাধারণ মানুষের অর্থ আত্মসাতকারী হুন্ডি ব্যবসায়ী, কমিউনিটিতে টাউট-বাটপার হিসেবে পরিচিতি লাভকারী ফাপড়বাজ, ব্যাংকের টাকা লুন্ঠনকারী, দলের ভিতরে জামায়াত-বিএনপির এজেন্ট, দুশ্চরিত্রবানসহ যাদের বিরূদ্ধে সুনির্দিষ্ট অপরাধের অভিযোগ আছে তাদের কেউই থাকবে না।

বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করে, শেখ হাসিনার নেতৃত্বের উপর আস্থা রেখে বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা ও অস্ট্রেলিয়া-বাংলাদেশ সম্পর্কোন্নয়নের লক্ষ্যে কাজ করে যাবে আগামীদিনের ঐক্যবদ্ধ অস্ট্রেলিয়া আওয়ামী লীগ।

অষ্ট্রেলিয়া প্রবাসী কবি ও আওয়ামী লীগ নেতা মিলটন হাসনাত এর ফেসবুক পোষ্ট


সর্বাধিক পঠিত

  • অাজ
  • সপ্তাহে
  • মাসে
External links are provided for reference purposes. This website is not responsible for the content of externel/internal sites.
উপরে যান